বৃহস্পতিবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৮, ০৮:৩৮ পূর্বাহ্ন

Generic selectors
Exact matches only
Search in title
Search in content
Search in posts
Search in pages
Filter by Categories
24 hour essay writing service
Uncategorized
অর্থনীতি
আদালত
আন্তর্জাতিক
আবহাওয়া
ইসলাম
কলাম
ক্যাম্পাস
ক্রিকেট
খেলাধুলা
চাকুরির খবর
ছবি
জাতীয়
জীবন ব্যবস্থা
তথ্যপ্রযুক্তি
ধর্ম
নির্বাচিত খবর
পরামর্শ
পুঁজিবাজার
প্রবাস
ফিচার
ফুটবল
ফেসবুক কর্নার
বিনোদন
বিবিধ
ভিডিও
ভোটের হাওয়া
মতামত
রাজধানী
রাজনীতি
রিপোর্টার পরিচিতি
শিক্ষা
শিরোনাম
শিল্প ও সাহিত্য
শীর্ষ খবর
সকল বিভাগ
সবখবর
সম্পাদকীয়
সর্বশেষ
সংস্কৃতি
সাক্ষাৎকার
সারাদেশ
সিটি কর্পোরেশন
স্বাস্থ্য কথা
শিরোনাম

দুর্নীতি বাংলাদেশের উন্নয়ন, গণতন্ত্রকে ম্লান করে দিচ্ছে: দুদক চেয়ারম্যান

দুর্নীতি বাংলাদেশের উন্নয়ন, গণতন্ত্রকে ম্লান করে দিচ্ছে: দুদক চেয়ারম্যান
প্রিন্ট করুন
দুর্নীতি বাংলাদেশের মতো উন্নয়শীল দেশের শিক্ষা, স্বাস্থ্য, সুশাসন, বিচারিক ব্যবস্থা, সমৃদ্ধি, উন্নয়ন এমনকি গণতন্ত্রকেও ম্লান করে দিচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ।

বৃহস্পতিবার (৬ ডিসেম্বর) সেগুনবাগিচায় দুদক’র প্রধান কার্যালয়ে আন্তর্জাতিক দুর্নীতিবিরোধী দিবস উপলক্ষে গণমাধ্যম ব্যক্তিত্বদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে এসব কথা বলেন তিনি।

দুর্নীতিবাজ সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের চিহ্নিত করে তাদের আমলনামা সংগ্রহ করা হচ্ছে জানিয়ে ইকবাল মাহমুদ বলেন, দুর্নীতি কিছুটা কমলেও কাঙ্খিত মাত্রায় কমেনি। তাই দুদক’র গোয়েন্দা ইউনিট এসব কর্মকর্তাদের আমলনামা সংগ্রহ করছে।

দুদক চেয়ারম্যান জানান, গত বছর কমিশন প্রায় ১৮ হাজার লিখিত অভিযোগ পেয়েছে। এ বছরের নভেম্বর পর্যন্ত ১২ হাজার ২২৭টি অভিযোগ পাওয়া গেছে। ২০১৭ সালের ২৭ জুলাই থেকে চলতি বছরের ৩০ নভেম্বর পর্যন্ত দুদক অভিযোগ কেন্দ্রের হটলাইন ১০৬-এ ১৯ লাখ ৪৪ হাজার ২২০টি ফোন কল এসেছে।

এছাড়া গত ১২ বছরে (২০০৭-২০১৮) পাঁচ হাজার ৮৯টি দুর্নীতির মামলা দায়ের করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। এ সময়ে বিলুপ্ত দুর্নীতি দমন ব্যুরোর আমলের মামলাসহ পাঁচ হাজার ৫২০টি মামলার অভিযোগপত্র আদালতে দাখিল করা হয়েছে। আর গত ১০ বছরে (২০০৯-২০১৮) এক হাজার ৩২১টি মামলায় আসামিদের সাজা হয়েছে। কমিশনের মামলায় ২০১৭ সালে সাজার পরিমাণ ছিল ৬৮ শতাংশ। সাজার হার ক্রমাগত বাড়ছে। কমিশনের প্রত্যাশা শতভাগ মামলায় সাজা পাবে দুর্নীতিবাজরা।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সংশ্লিষ্ট সংবাদ