শুক্রবার, ২২ মার্চ ২০১৯, ১২:২০ পূর্বাহ্ন

Generic selectors
Exact matches only
Search in title
Search in content
Search in posts
Search in pages
Filter by Categories
24 hour essay writing service
Uncategorized
অর্থনীতি
আদালত
আন্তর্জাতিক
আবহাওয়া
ইসলাম
কলাম
ক্যাম্পাস
ক্রিকেট
খেলাধুলা
চাকুরির খবর
ছবি
জাতীয়
জীবন ব্যবস্থা
তথ্যপ্রযুক্তি
ধর্ম
নির্বাচিত খবর
পরামর্শ
পুঁজিবাজার
প্রবাস
ফিচার
ফুটবল
ফেসবুক কর্নার
বিনোদন
বিবিধ
ভিডিও
ভোটের হাওয়া
মতামত
রাজধানী
রাজনীতি
রিপোর্টার পরিচিতি
শিক্ষা
শিরোনাম
শিল্প ও সাহিত্য
শীর্ষ খবর
সকল বিভাগ
সবখবর
সম্পাদকীয়
সর্বশেষ
সংস্কৃতি
সাক্ষাৎকার
সারাদেশ
সিটি কর্পোরেশন
স্বাস্থ্য কথা
শিরোনাম

জমে উঠেছে ধারাবাহিক নাটক ‘শান্তিপুরীতে অশান্তি।

বিনোদন ডেস্ক ঃ ১৪/০৩/১৯

জমে উঠেছে ধারাবাহিক নাটক ‘শান্তিপুরীতে অশান্তি।
প্রিন্ট করুন
জমে উঠেছে ধারাবাহিক নাটক ‘শান্তিপুরীতে অশান্তি। ইউসুফ আলী খোকনের  রচনায় এ নাটকটি পরিচালনা করেছেন নির্মাতা সকাল আহমেদ।পথিক প্রডাকশন হাউজের প্রযোজনায় ধারাবাহিক নাটক ‘শান্তিপুরীতে অশান্তি’ বৈশাখী টিভিতে প্রতি মঙ্গল থেকে বৃহষ্পতিবার রাত ৮ টায় প্রচার হচ্ছে । আজ বৃহষ্পতিবার রাত ৮ টায় প্রচার হবে নাটকটির  ৪৯ তম পর্ব । আগামী সপ্তাহে ৫০তম পর্ব পার করবে ধারাবাহিক । এই নাটকটির নির্বাহী প্রযোজক তুহিন বড়ুয়া।

নাটকে অভিনয় করেছেন রহমত আলী, ওয়াহিদা মল্লিক জলি, শবনম ফারিয়া, অর্ষা, তানজিকা আমিন, কাজল সূবর্ণ, আফরান নিশো, আরমান পারভেজ মুরাদ, ইউসুফ রাসেল, অধরা,  হিমে হাফিজ, তুষার খান. কায়েস চৌধুরী, এস এম মোহসীন,সোহরাব হিরো , খলিলুর রহমান কাদেরী, সাইকা আহমেদ, অনুভব মাহবুব্‌ , মৌ শিখা , মৌ , উর্মিলা , বাবু , নিকুল কুমার মন্ডল , সুমন , মুক্তা , আসমত , রেশমি , রনি , বাদল , শামিম , লিটু ,পলাশ , শুভ প্রমুখ।

এই নাটকের গল্পে দেখা যাবে , রাজধানী ঢাকার একটি বাড়ির নাম শান্তিপুর। অপার শান্তির আশাতেই এমন নাম দেওয়া হয় বাড়িটির। এ বিশাল বাড়ির মালিক দু’জন। রহমত আলী ও ওয়াহিদা মলি­ক জলি। সম্পর্কে তারা স্বামী-স্ত্রী হলেও কেউ কারো ধার ধারে না। প্রত্যেকেরই আলাদা ফ্ল্যাট আলাদা ভাড়াটিয়া। স্বামী-স্ত্রীর সম্পর্কটা সাপে-নেওলে। তাদের চিৎকার চেচামেচিতে শান্তিপুরী রুপ নেয় অশান্তিপুরীতে। এই অশান্তিপুরী থেকে ভাড়াটিয়ারাও বিদায় নেয় একে একে। এ অবস্থায় রহমত আলী কয়েকজন ব্যাচেলর ছেলেকে ভাড়া দিয়ে তার গ্যাং তৈরি করে। ব্যাচেলর ছেলেরা রহমত আলীর পরামর্শে ওয়াহিদা মলি­ক জলিকে নানা ভাবে অপমান করে।

তাদের যন্ত্রনায় একসময় অতিষ্ট হয়ে ওঠে জলি। কি করবে ভেবে পায় না। পাশের বাসার সাইকা আহমেদের সঙ্গে পরামর্শ করে। তিনিও জলিকে কয়েকজন ব্যাচেলর মেয়েকে ভাড়া দেওয়ার পরামর্শ দেন। যে কথা সেই কাজ। ওয়াহিদা মলি­ক জলিও কয়েকজন মেয়ে ব্যাচেলরকে ভাড়া দিয়ে গ্যাং তৈরি করে। শুরু হয় একজনকে শায়েস্তা করতে অপরজনের নানা প্রতিযোগিতা। ফলে শান্ত শান্তিপুরী হয়ে ওঠে অশান্তিপুরী। এমন নানা রকম ঘটনার মধ্য দিয়ে এগিয়ে চলে এর কাহিনী’।

পি,

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সংশ্লিষ্ট সংবাদ