র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব) প্রতিষ্ঠাকালীন সময় থেকেই দেশের সার্বিক আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি সমুন্নত রাখার লক্ষ্যে সব ধরণের অপরাধীকে আইনের আওতায় নিয়ে আসার ক্ষেত্রে অগ্রণী ভূমিকা পালন করে থাকে। জঙ্গী, অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী, সংঘবদ্ধ অপরাধী, ছিনতাইকারী, মাদক ব্যবসায়ী এবং খুন, অপহরণসহ বিভিন্ন চাঞ্চল্যকর মামলার আসামী গ্রেফতারে র‌্যাব নিয়মিত অভিযান চালিয়ে আসছে।

এরই ধারাবাহিকতায় অদ্য ১৮ জানুয়ারি ২০২৩ খ্রিঃ তারিখ ভোর রাত্রে র‌্যাব-১০ এর একটি আভিযানিক দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ঢাকা জেলার দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জ থানাধীন হাসনাবাদ এলাকায় মাদক বিরোধী অভিযান পরিচালনা করে। উক্ত অভিযানে কুখ্যাত সন্ত্রাসী ও মাদক স¤্রাট ১। মোঃ জরিপ মিয়া @ কালা জরিপ (৪০) ও তার সহযোগী ২। মোঃ আনিসুর রহমান (৩৮), ৩। মোঃ জাহিদ ওরফে বাবু (৪৫) ও ৪। ঝুমুর আক্তার (২৬)’দেরকে গ্রেফতার করা হয়। এসময় তাদের নিকট থেকে ০১টি বিদেশী পিস্তল, ০১টি ম্যাগজিন, ০১ রাউন্ড এ্যামুনেশন (গুলি), ০১টি টেজার গান, ০১টি এয়ার পিস্তল, ০১টি রাম দা, ০১টি ছোরা, ০১টি চাকু, ০১টি লোহার এসএস পাইপ, ০১টি কাঠের লাঠি, ৫৮০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট, ০৪ বোতল বিদেশী মদ, ০১টি গাড়ি, ০৭টি মোবাইল ফোন ও নগদ- ১,৯৪,৫০০/- (এক লক্ষ চুরানব্বই হাজার পাঁচশত) টাকা উদ্ধার করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় যে, গ্রেফতারকৃত ব্যক্তিরা কেরাণীগঞ্জ এলাকার মাদক ব্যবসায়ী ও অবৈধ অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী বাহিনীর সক্রিয় সদস্য। যাদের মূল নেতৃত্বে রয়েছে মোঃ জরিপ @ কালা জরিপ। জরিপের নেতৃত্বে কেরাণীগঞ্জসহ আশপাশের বিভিন্ন এলাকায় মাদক ব্যবসা, অবৈধ ভূমি দখল, চাঁদাবাজি, ধর্ষণ ও হত্যাসহ বিভিন্ন প্রকার সন্ত্রাসী কার্যক্রম পরিচালিত হয়। তাদের কাজে কেউ বাঁধা প্রদান করলে জরিপ ও তার সহযোগীরা বাঁধা প্রদানকারীদের বিভিন্ন প্রকার হুমকি, মারধর ও প্রয়োজনে তাদের হত্যা করত বলে জানা যায়।

গ্রেফতারকৃত মোঃ জরিপ মিয়া @ কালা জরিপ ঢাকার দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জ থানাধীন হাসনাবাদ এলাকায় ডিস ব্যবসার আড়ালে প্রায় ১৫ বছর যাবত তার সন্ত্রাসী বাহিনী দ্বারা অবৈধ ভূমি দখল ও চাঁদাবাজিসহ বিভিন্নি সন্ত্রাসী কর্মকান্ড পরিচালনা করে আসছে। এইসব কাজে কেউ বাঁধা প্রদান করলে তার নেতৃত্বে বাধাদানকারীকে মারধর এবং প্রয়োজনে তাকে হত্যা করতেও দ্বিধাবোধ করত না। এছাড়া তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় মাদক, মারামারি, চাঁদাবাজি ও হত্যা মামলাসহ ১০টি মামলাসহ অনেক অভিযোগ রয়েছে বলে জানা যায়।

আনিছুর রহমান এর ঢাকার দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জ থানাধীন হাসনাবাদ হাউজিং এলাকায় একটি এসএস ওয়ার্কশপ রয়েছে। সে উক্ত ব্যবসার আড়ালে জরিপের সাথে মাদক ব্যবসাসহ সকল প্রকার সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের প্রধান সহযোগি হিসেবে কাজ করত। এছাড়া আনিছুর এর বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় মাদক ও হত্যা মামলাসহ ০২টি মামলা রয়েছে বলে জানা যায়।

মোঃ জাবিদ @ রহিম এর ঢাকার দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জ থানাধীন বসুন্ধারা রিভার ভিউ এলাকায় গার্মেন্টস এর ব্যবসা রয়েছে। সে উক্ত ব্যবসার আড়ালে জরিপের সাথে উক্ত এলাকায় আধিপত্ত বিস্তার, মাদক ব্যবসাসহ অন্যান্য সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের অন্যতম সহযোগি বলে জানা যায়।

গ্রেফতারকৃত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট থানায় নিয়মিত মামলা রুজুর কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x