কুষ্টিয়া প্রতিনিধি:

বিএনপির উদ্দেশ্যে আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল-আলম হানিফ বলেছেন, পদ্মা সেতুতে দুর্নীতি কোথায় হয়েছে তার একটা তথ্যগত প্রমাণ যদি দিতে পারে, তাহলে যে কোনো অভিযোগ মাথা পেতে নেব।

তিনি বলেন, তথ্যগত কোনো অভিযোগ নেই, বিএনপি কাল্পনিক একটা অভিযোগ করছে পদ্মা সেতুতে দুর্নীতি হয়েছে। পদ্মা সেতুতে বিশ্বব্যাংক অর্থ প্রত্যাহার করেছিল সেটাও একটা কল্পিত অভিযোগ ছিল। যেটা পরবর্তীতে কানাডার ফেডারেল কোর্টে মিথ্যা প্রমাণিত হয়েছে। এরপরেও যারা ওই প্রসঙ্গ টেনে আনে তারা পদ্মা সেতুতে বিশ্ব ব্যাংকের অর্থ প্রত্যাহার ষড়যন্ত্রের সাথে সম্পৃক্ততা ছিল।

বৃহস্পতিবার দুপুরে কুষ্টিয়া সরকারি মহিলা কলেজের নবীনবরণ ও কৃতি শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে সমসাময়িক রাজনৈতিক পেক্ষাপট নিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে হানিফ এসব কথা বলেন।

হানিফ আরও বলেন, বিএনপি রাষ্ট্রক্ষমতায় থাকা অবস্থায় তাদের ব্যর্থতা, দুর্নীতি, অপকর্ম আড়াল করার জন্য সরকারের বিরুদ্ধে উন্নয়ন কর্মকণ্ডের বিরুদ্ধে এই কল্পিত অভিযোগ করে যাচ্ছে। এই পদ্মা সেতু প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দৃঢ় প্রত্যয়ের পদ্মা সেতু। এই পদ্মা সেতুর সঙ্গে এ দেশের মানুষের আবেগ জড়িয়ে আছে। পদ্মা সেতু উদ্বোধন উপলক্ষে সারাদেশের মানুষের মধ্যে একটা নতুন জাগরণ সৃষ্টি হয়েছে।

হানিফ আশাবাদ ব্যাক্ত করেন, ২৫ জুন একদিকে পদ্মা সেতুর উদ্বোধন হবে, আরেকদিকে এটা একটা মানুষের মধ্যে আবেগের মহা মিলনমেলা হবে।

সরকার পতনে রাজপথে আন্দোলনে নামতে ২০ দলীয় জোট সংঘটিত হচ্ছে, এ প্রসঙ্গে হানিফ বলেন, বিএনপির নেতৃত্বে একমাত্র এই বিএনপি-জামায়াত যুদ্ধপরাধী দল ছাড়া আর কোনো দলের অস্তিত্ব দেশের মানুষের কাছে আছে বলে দেশের মানুষ বিশ্বাস করে না। অতএব তারা কারা সাথে বসলো না বসলো এটা তাদের ব্যাপার। বিএনপির এই সমস্ত বৈঠক করা, সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলন করা নিয়ে সরকার খুব একটা মাথা ঘামাচ্ছে বলে মনে হয় না।

এ সময় কুষ্টিয়া-৪ আসনের সাংসদ সেলিম আলতাফ জর্জ, দৌলতপুর আসনের সাংসদ আ কা ম সরওয়ার জাহান বাদশাহসহ অত্র কলেজের শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও সুধীজনেরা উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

x