মো. আহসানুল ইসলাম আমিন,স্টাফ রিপোর্টার : পরিবেশ বিনষ্টকারীরা দেশ ও জাতির শত্রু আখ্যা দিয়ে এদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে সমাজের বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানিয়েছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী  ডা. হাছান মাহমুদ।

শুক্রবার (২২এপ্রিল) রাজধানীর সিরডাপ মিলনায়তনে বিশ্ব ধরিত্রী “ দিবস ২০২২ উপলক্ষে আয়োজিত ” পৃথিবীকে রক্ষা করতে বাস্তুসংস্থানসমূহ নিরাপদ করি”  শীর্ষক বিশেষ সেমিনারে এ আহ্বান জানান তিনি। আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক উপ-কমিটির আয়োজনে এ সেমিনারের আয়োজন করা হয়।

তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী ডা. হাছান মাহমুদ বলেন, এই পৃথিবীর মালিক কিন্তু শুধু আমরা নই, ছোট্ট পিঁপড়া থেকে শুরু করে অন্য প্রাণীরাও এর মালিক। পৃথিবীর সমস্ত সম্পদ আমাদের প্রয়োজনে আমরা ব্যবহার করছি। কিন্তু ভবিষ্যতে আমাদের প্রয়োজন নিয়ে মাথা ঘামাচ্ছি না। একসময় ডাইনোসর পৃথিবী দাপিয়ে বেড়িয়েছে। সেই ডাইনোসর বিলুপ্ত হয়ে গেছে। তিনি বলেন, আজ পৃথিবী উষ্ণ হচ্ছে। এই যে তাপমাত্রা বাড়ছে, এটা আমাদের কারণে বাড়ছে। শুধু তাপমাত্রা বাড়ছে না, সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতা বাড়ছে, বরফ গলছে, আরও অনেক নেতিবাচক প্রতিক্রিয়া হচ্ছে। এগুলো পৃথিবীর উষ্ণায়নের কারণে ঘটছে।

তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী বলেন, পরিবেশ রক্ষায় দেশের মানুষ সচেতন নয়। ঢাকা শহরে দুকোটি মানুষ বাস করে। সবাই মনে করে, পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন রাখার দায়িত্ব শুধু ঢাকা সিটি করপোরেশনের। এভাবে তো একটা শহর কোনোভাবে বসবাস উপযোগী রাখা সম্ভব নয়। তিনি বলেন, আমি নিজে কখনো পলিথিন ব্যবহার করি না। পলিথিন বন্ধে একটা আইন আছে, কিন্তু এখন সবকিছুতে পলিথিন দেওয়া হয়। কিছুদিন অভিযান পরিচালনা করে আবার হাওয়ায় মিলিয়ে যায়। মানুষ যদি পলিথিন না নিতো তাহলে পলিথিন আসতো না। মানুষকে সচেতন করতে হবে। না হলে কোনো কিছুই রক্ষা পাবে না।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

x