জেনেভা ক্যাম্পে বিহারিদের অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে বসবাসের বিষয়টি উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাদেরকে ঢাকার বাইরে পুনর্বাসন করা যেতে পারে বলে মত দিয়েছেন।

রবিবার ‘ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনে (ডিএনসিসি) নতুনভাবে অন্তর্ভুক্ত ১৮টি ওয়ার্ডের সড়ক অবকাঠামো ও ড্রেনেজ ব্যবস্থার নির্মাণ ও উন্নয়ন (ফেজ-১)’ শীর্ষক প্রকল্পের কাজের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ভার্চুয়াল ভাষণে তিনি এ মত দেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, বিহারিরা পাকিস্তানে ফিরে যেতে চাইলেও পাকিস্তান সরকারের উদ্যোগ না থাকায় তাদের বাধ্য হয়ে জেনেভা ক্যাম্পের ছোট জায়গায় অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে বসবাস করতে হচ্ছে। তাদের জন্য ভালো বাসস্থানের ব্যবস্থা করে দেবেন তিনি।

শেখ হাসিনা বলেন, ‘তারা খুব কর্মঠ, বিভিন্ন কাজ তারা খুব দক্ষতার সঙ্গে করতে পারেন। যে কারণে, আমি চাচ্ছি তাদের জন্য একটা ভালো বাসস্থানের ব্যবস্থা করে দেওয়ার এবং তারা যে যে কাজে পারদর্শী নিজেদের সে কাজে সম্পৃক্ত করে যাতে জীবন-জীবিকার ব্যবস্থা করতে পারে সে ব্যবস্থাটা আমাদের করতে হবে। কারণ, মানুষকে মানুষ হিসেবেই আমরা দেখতে চাই।’

তিনি বলেন, ‘প্রয়োজনে ঢাকার বাইরে আরও বড় জায়গায় বা ইন্ডাস্ট্রিয়াল জোনে, যেখানে কাজের ব্যবস্থা রয়েছে সেখানে এই পুনর্বাসনটা করা যেতে পারে।’

এ সময় প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের যারা ইঞ্জিনিয়ার বা আর্কিটেক্ট, যখন তারা কোনো প্ল্যান করবেন অন্তত ফুটপাতটা যেন মানুষের হাঁটার যোগ্য থাকে এবং সেটা যেন দখল না হয় যেদিকে দৃষ্টি দিয়েই করতে হবে।

তিনি বলেন, আর কাউকে দোষ দেব না; আমাদের প্ল্যান করা সময়ই এই সর্বনাশটা করা হয়ে যায় দুর্ভাগ্যজনক।

এলজিআরডি মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন। সেনাপ্রধান জেনারেল এসএম শফিউদ্দিন আহমেদ এবং স্থানীয় মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম অনুষ্ঠানে বক্তৃতা করেন।

অনুষ্ঠানে ২৪ ইঞ্জিনিয়ারিং কোরের কমান্ডার ব্রি. জেনারেল এস এম জাকারিয়া হোসেন প্রকল্পের ওপর পাওয়ার পয়েন্ট প্রেজেন্টেশন উপস্থাপন করেন।

স্থানীয় সরকার বিভাগের সিনিয়র সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x