মো .আহসানুল ইসলাম আমিন, স্টাফ রিপোর্টার:

মুন্সিগঞ্জের লৌহজং উপজেলার মাওয়া প্রান্তে স্বপ্নের পদ্মা সেতুতে ঝলমল করে জ্বলে উঠল আলো। আজ সোমবার (১৩ জুন) বিকেল সাড়ে পাঁচটার দিকে বিদ্যুৎ-সংযোগের মাধ্যমে মাওয়া প্রান্তের ল্যাম্পপোস্টে একসঙ্গে ২০৭টি বাতি জ্বালানো হয়।

পদ্মা সেতুর নির্বাহী প্রকৌশলী দেওয়ান মো. আবদুল কাদের বলেন, মুন্সিগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির দেওয়া বৈদ্যুতিক সংযোগের মাধ্যমে এই প্রথম মাওয়া প্রান্তের ২০৭টি ল্যাম্পপোস্টে পরীক্ষামূলকভাবে বাতি জ্বালানো হয়েছে। আগামীকাল মঙ্গলবার(১৪ জুন) জাজিরা প্রান্তের বাতিগুলো বিদ্যুৎ-সংযোগের মাধ্যমে জ্বালানো হবে। এরপর সম্পূর্ণ সেতুর বাতিগুলো একসঙ্গে জ্বালানো হবে। সম্পূর্ণ সেতুর বাতি একসঙ্গে জ্বালাতে আর ২-৩ দিন সময় লাগতে পারে।

সেতু উদ্বোধনের আগে প্রতিদিন সন্ধ্যা থেকে সকাল পর্যন্ত বাতি জ্বালানোর বিষয়ে তিনি বলেন, যেহেতু উদ্বোধনের আগে সেতুতে গাড়ি চলবে না। তাই বাতি জ্বালানো বিদ্যুতের অপচয় হবে। সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে কথা বলে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। গত ৪ জুন বিকেলে সর্বপ্রথম পরীক্ষামূলকভাবে সেতুতে আলো জ্বালানো হয়। সেদিন সেতুর ১৪ নম্বর থেকে ১৯ নম্বর পিলারের মাঝের ২৪টি ল্যাম্পপোস্টের বাতি জ্বলে। এরপর ১১ জুন পর্যন্ত একে একে সেতুর বাকি বাতি ঠিকভাবে জ্বলে কি না তা পরীক্ষা করে দেখা হয়। ৬ দশমিক ১৫ কিলোমিটার দীর্ঘ এ সেতুতে মোট ল্যাম্পপোস্ট আছে ৪১৫টি। দুই পাশের সংযোগ সড়কে আছে আরও ২০০ বাতি। গত বছরের ২৫ নভেম্বর সেতুর মাওয়া প্রান্তে ল্যাম্পপোস্ট বসানোর কাজ শুরু হয়। ১৮ এপ্রিল সেই কাজ শেষ হয়েছে। এরপর ২৪ মে শরীয়তপুর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি সেতুতে বিদ্যুৎ সংযোগ দেয়। পরে মুন্সীগঞ্জ থেকেও বিদ্যুৎ সংযোগ দেয়া হয়। আগামী ২৫ জুন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সেতু উদ্বোধন করবেন। ২৬ জুন সকালে সবার জন্য উন্মুক্ত করে দেয়া হবে সেতুটি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

x