ইউক্রেনে নতুন দুই শহরে হামলা শুরু করেছে রুশ বাহিনী। সামরিক অভিযান শুরুর পর থেকে দেশটির দুই প্রান্তের দুই শহর লুতস্ক এবং দিনিপ্রোতে এই প্রথম হামলা চালালো রাশিয়ার সামরিক বাহিনী।

ইউক্রেনের স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের বরাত দিয়ে করা ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদনে জানা যায়, ইউক্রেনে রুশ আগ্রাসনের ১৬ তম দিনে এসে শুক্রবার (১১ মার্চ) নতুন এই দুই শহরে হামলা শুরু করার পর সেখান থেকে ক্রমাগত বিস্ফোরণের আওয়াজ পাওয়া যাচ্ছে।

লুতস্ক শহরের মেয়রও ফেসবুকে দেয়া এক পোস্টে রুশ বাহিনীর হামলার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। শহরের সাধারণ মানুষকে তিনি নিরাপদ আশ্রয়ে সরে যাওয়ার আহ্বানও জানিয়েছেন।

ইউক্রেনের দিনাইপার নদীর পাড়ে অবস্থিত দেশটির প্রধান দুর্গ বলে পরিচিত পূর্বাঞ্চলের শহর দিনিপ্রো এবং দেশটির উত্তর পশ্চিমের শহর লুতস্কে এই প্রথমবার হামলা চালালো রুশ বাহিনী। এই দুই শহরে হামলার কিছু সময় আগেই ইউক্রেনের বেশ কয়েকটি শহরে বিমান হামলার সাইরেন বাজানো হয়।

লুতস্কের স্থানীয় বাসিন্দাদের বরাত দিয়ে বিবিসি জানিয়েছে, সেখানকার একটি বিমান ঘাঁটিকে লক্ষ্য করে হামলা চালানো শুরু করেছে রুশ বাহিনী। এ বাদে একটি কারখানাতেও হামলা চালানো হয়েছে যেখানে নির্দিষ্ট কিছু যুদ্ধবিমানের ইঞ্জিন মেরামতের কাজ করা হয়ে থাকে। এই কারখানাটি ইউক্রেনের কৌশলগত সম্পদের তালিকার অন্তর্ভুক্ত বলেও জানানো হয়।

চলমান সমারিক অভিযানে এর আগে রুশ বাহিনী ইউক্রেনের কয়েকটি শহর নিজেদের দখলে নিয়েছে। দেশটির দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর খারকিভ রুশ বাহিনীর সাথে ইউক্রেনের যোদ্ধাদের ক্রমাগত সংঘাত হয়েই যাচ্ছে। এদিকে রাজধানী কিয়েভের দখল নিতেও মরিয়া রুশ বাহিনী। কিয়েভের আরও কাছে পৌঁছে গেছে প্রায় ৪০ মাইল দীর্ঘ রুশ সেনাবহর। স্যাটেলাইট চিত্রে দেখা যায়, বর্তমানে শহরটির মাত্র পাঁচ কিলোমিটার এলাকার ভেতর রুশ সেনাবহর অবস্থান করছে। যেকোনো সময় রুশ বাহিনী কিয়েভে সর্বাত্মক হামলা শুরু করতে পারে বলেও দাবি করেছে মার্কিন প্রতিরক্ষা কর্মকর্তারা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x