Wednesday , 19 June 2024
শিরোনাম

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ক্যাম্পাসে স্নাতক কোর্স বন্ধের নির্দেশ

গাজীপুরে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ক্যাম্পাসে ২০২২-২০২৩ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক (সম্মান) প্রোগ্রামে শিক্ষার্থী ভর্তির কার্যক্রম স্থগিত রাখার নির্দেশনা দিয়েছে বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি)।

মঙ্গলবার (১৯ সেপ্টেম্বর) ইউজিসির উপপরিচালক (জনসংযোগ ও তথ্য অধিকার বিভাগ) মোহাম্মদ আব্দুল মান্নানের সই করা এক অফিস আদেশে এ নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

আদেশে বলা হয়, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অন-ক্যাম্পাস স্নাতক প্রোগ্রামে শিক্ষার্থী ভর্তিসহ সব কার্যক্রম স্থগিত করার নির্দেশনা দেওয়া হলো। গতকাল সোমবার ইউজিসির এক সভায় সর্বসম্মতিক্রমে গৃহীত সিদ্ধান্তের পরিপ্রেক্ষিতে এ নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

একইসঙ্গে অন-ক্যাম্পাস স্নাতক প্রোগামে শিক্ষার্থী ভর্তির উদ্যোগ কেন নেওয়া হয়েছে, সে বিষয়ে ৫ কর্মদিবসের মধ্যে ব্যাখ্যা চেয়েছে ইউজিসি।

কমিশন বলছে, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ক্যাম্পাসে স্নাতক প্রোগ্রামে শিক্ষার্থী ভর্তির কার্যক্রম জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় আইন ১৯৯২ এর লঙ্ঘন।

নির্দেশনায় বলা হয়েছে, গাজীপুরে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ক্যাম্পাসে ২০২২-২৩ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক (সম্মান) প্রোগ্রামে শিক্ষার্থী ভর্তির জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে চলতি বছরের ২০ জুলাই একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়। বিজ্ঞপ্তিতে এলএলবি, বিবিএ, ট্যুরিজম অ্যান্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট এবং নিউট্রিশন অ্যান্ড ফুড সায়েন্স বিষয়ে শিক্ষার্থী ভর্তির জন্য আবেদন আহ্বান করা হয়।

বিজ্ঞপ্তিটি কমিশনের নজরে এসেছে উল্লেখ করে নির্দেশনায় আরও বলা হয়, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় আইন ১৯৯২ অনুযায়ী, দেশের কলেজ শিক্ষার স্নাতক ও স্নাতকোত্তর পর্যায়ে পাঠক্রম ও পাঠ্যসূচির আধুনিকীকরণ ও উন্নতিসাধন, শিক্ষার গুণগত মানোন্নয়ন এবং শিক্ষকদের প্রশিক্ষণ ও যোগ্যতা বৃদ্ধিসহ কলেজের যাবতীয় বিষয় ও ব্যবস্থাপনার দায়িত্ব একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের ওপর ন্যস্ত করা সমীচীন ও প্রয়োজনীয় হওয়ায় বিশ্ববিদ্যালয়টি স্থাপন করা হয় এবং এ আইনের ধারা ৬ অনুযায়ী ‘এই আইন ও অর্ডারের বিধান সাপেক্ষে’ বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্ষমতা নির্ধারিত।

ধারা ২ (গ) অনুযায়ী, ডিগ্রি, ডিপ্লোমা এবং সার্টিফিকেট প্রদান সংক্রান্ত সব স্বীকৃত শিক্ষাদান সাধারণত কলেজ, স্কুল ও কেন্দ্র দ্বারা এককভাবে বা পারস্পরিক সহযোগিতার মাধ্যমে অথবা বিশ্ববিদ্যালয়ের সহযোগিতায় অথবা অ্যাকাডেমিক কাউন্সিল অনুমোদিত অন্য কোনো বিশ্ববিদ্যালয়ের কোনো প্রতিষ্ঠানের সহযোগিতায় পরিচালিত হবে।

আইনের এসব ধারার উল্লেখ করে ইউজিসি বলছে, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ক্যাম্পাসে স্নাতক প্রোগ্রামে শিক্ষার্থী ভর্তির বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় আইন ১৯৯২ এর সুস্পষ্ট লঙ্ঘন।

এ অবস্থায় কীসের ভিত্তিতে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে অন-ক্যাম্পাস স্নাতক প্রোগামে শিক্ষার্থী ভর্তির ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে সে বিষয়ে ৫ কর্মদিবসের মধ্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের বক্তব্য কমিশনে পাঠানোর অনুরোধ জানানো হয়।

Check Also

শিক্ষার্থীদেরকে স্বপ্ন জয়ী মানুষ হতে হবে – ড. মোছা. ইসমত আরা খাতুন

শিক্ষাজীবনের এই সময়টা খুবই গুরুত্বপূর্ণ সময়। জীবন গড়ার সময়। সামনে গুরুত্বপূর্ণ পরীক্ষা। তারপরই শুরু হবে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x