হঠাৎ সিদ্ধান্ত বদলে দক্ষিণ আফ্রিকায় যাওয়ার কথা জানিয়েছেন সাকিব আল হাসান। রোববার তিনি আফ্রিকার উদ্দেশ্যে ঢাকা ছাড়বেন।

বিসিবিতে বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনের সঙ্গে বৈঠক শেষে সাকিব নিজেই জানালেন, তিনি দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে যাচ্ছেন।

এর আগে মানসিক অবসাদের কারণে দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজ থেকে বিশ্রাম নিয়েছিলেন সাকিব। বিসিবির কাছে ছুটি চেয়ে আবেদনের প্রেক্ষিতে আগামী ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত আন্তর্জাতিক ও ঘরোয়া ক্রিকেট থেকে বিশ্রাম দেওয়া হয় সাকিবকে।

গত বৃহস্পতিবার দুবাই থেকে দেশে ফিরে আজ দুপুরে সাড়ে ১২টার দিকে মিরপুরের বিসিবি কার্যালয়ে বৈঠকে বসেন সাকিব-পাপনসহ আরও কয়েকজন বোর্ড পরিচালক।

নিজেদের মধ্যে আলোভচনা শেষে সংবাদমাধ্যমের সামনে এসে দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজের জন্যও তাকে পাওয়া যাবে বলে জানিয়েছেন সাকিব আল হাসান নিজেই।

সাকিব বলেন, ‘পাপন ভাইয়ের সঙ্গে পরশু রাতে ও আজ কথা হয়েছে। যেহেতু আমি তিন ফরম্যাটেই আছি, তিন ফরম্যাটেই সবসময় এভেইলেবল থাকব। আমাকে কখন বিশ্রাম দেয়া দরকার সেই সিদ্ধান্ত নেবে। দক্ষিণ আফ্রিকা সফরেও আমি থাকছি।’

এছাড়াও সকল সিদ্ধান্ত মেনে নেয়ার ঘোষণাও দেন এই অলরাউন্ডার। সংবাদ সম্মেলনে সাকিবকে বেশ হাসিমুখেই দেখা গেছে।

সাকিব এমনটিও জানিয়েছেন যে, দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে গেলে তার মন ভালো হতেও পারে, কেটে যেতে পারে তার মানসিক অবসাদ।

এসময় বিসিবি সভাপতি পাপন জানান, আগামীকাল (রোববার) রাতে দক্ষিণ আফ্রিকার উদ্দেশ্যে উড়াল দেবেন সাকিব। সেখানে দলের সাথে যোগ দিয়ে খেলবেন ‍দুই ফরম্যাটেই।

গতকাল ও আজ মিলিয়ে তিন ধাপে ইতোমধ্যেই দক্ষিণ আফ্রিকা পৌঁছে গেছেন বাংলাদেশের টেস্ট ও ওয়ানডে দুই ফরম্যাটের দলই। সেখানে ১৮ মার্চ থেকে শুরু হবে ওয়ানডে সিরিজ।। তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ শেষে ৩১ মার্চ থেকে ডারবানে শুরু হবে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x