৬ বছর পরও কমিটি পেল না রাবি ছাত্রলীগ

শিক্ষা

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণা করেছেন ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সভাপতি সাদ্দাম হোসেন। সম্মেলনের প্রথম অধিবেশন শেষে তিনি এ ঘোষণা দেন। তবে দ্বিতীয় অধিবেশনের পরে কমিটি ঘোষণা দেওয়ার কথা থাকলেও তারা কমিটি না দিয়েই ক্যাম্পাস ত্যাগ করেন।

এর আগে সোমবার (১৮ সেপ্টেম্বর) দুপুর ১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবাস বাংলাদেশ মাঠে শাখার ২৬তম বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সম্মেলনের প্রথম অধিবেশনে জাতীয় পতাকা ও সাদা পায়রা উড়িয়ে উদ্ধোধন করেন কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সভাপতি সাদ্দাম হোসেন।

পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনেট ভবনে বিকেল পাঁচটায় নেতৃত্ব নির্বাচনের ‘সাবজেক্ট কমিটির’ আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। ঘণ্টাব্যাপী আলোচনায় নেতৃত্ব নির্বাচনে সিদ্ধান্তে পৌঁছাতে না পেরে কমিটি ঘোষণা না করেই কেন্দ্রীয় নেতারা ক্যাম্পাস ত্যাগ করেন।

নেতৃবৃন্দ বলছেন, যাচাই-বাছাই করে কমিটি দেওয়া হবে। তবে কবে নাগাদ দেওয়া হবে তা নির্দিষ্ট করে বলতে পারেননি।

বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের বিলুপ্ত কমিটির সাধারণ সম্পাদক ফয়সাল আহমেদ বলেন, ‘কেন্দ্রীয় নেতারা যাচাই-বাছাই করে কমিটি ঘোষণা করবেন। এ বিষয়ে তারা খোঁজ খবর নিচ্ছেন।’

তবে কবে নাগাদ কমিটি করা হবে জানতে চাইলে তিনি নির্দিষ্ট করে কিছু বলেননি।

ছাত্রলীগের নেতাদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, সর্বশেষ ২০১৬ সালের ৮ ডিসেম্বর রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের ২৫তম সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। ১১ ডিসেম্বর গোলাম কিবরিয়াকে সভাপতি ও ফয়সাল আহমেদকে সাধারণ সম্পাদক করে ১৩ সদস্যের আংশিক কমিটি ঘোষণা করা হয়। ওই কমিটির মেয়াদ শেষ হয় ২০১৭ সালের ১১ ডিসেম্বর।

সম্মেলনে প্রধান অতিথি ছিলেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও রাজশাহী সিটি মেয়র এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটন। বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি গোলাম কিবরিয়ার সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক ফয়সাল আহমেদের সঞ্চালনায় প্রধান বক্তা ছিলেন কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শেখ ওয়ালী আসিফ ইনান। বিশেষ অতিথি ছিলেন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন। সম্মানিত অতিথি ছিলেন কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি আনিকা ফারিহা জামান অর্ণা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *