23 November, 2020
শিরোনাম

গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণে একই পরিবারের নয়জন দগ্ধ

 24 Oct, 2020   57 বার দেখা হয়েছে

 নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রিন্ট

কিশোরগঞ্জের হাওর উপজেলা মিঠামইনে রান্না করার সময় গ্যাস সি‌লিন্ডা‌রের বিস্ফোরণে শিশুসহ একই প‌রিবা‌রের ৯ জন অ‌গ্নিদগ্ধ হয়েছে। দগ্ধ ৯ জনের মধ্যে ৫ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানা গেছে। | শনিবার দুপুরে উপজেলার কাটখাল ইউনিয়নের হাজীপাড়ায় এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। দগ্ধরা হলেন- কাটখাল গ্রামের আবদুস সালামের স্ত্রী সিপাই নেছা, দুই ছেলে কামাল ও আনোয়ার, মেয়ে তাসলিমা, দুই নাতি উম্মে হাবিবা ও উম্মে হানি এবং তাদের স্বজন পারভিন আক্তার ও জুয়েনা বেগমসহ মোট ৯ জন। বাজিতপুরের জহুরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, অগ্নিদগ্ধ ৯ জনের মধ্যে পাঁচজনের অবস্থা গুরুতর। চারদিনের একটি শিশু ছাড়া বাকি সবার শরীরের ৭০ ভাগ পুড়ে গেছে। তাদের সবাইকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। অগিদগ্ধ জুয়েনা সাত মাসের গভীবর্তী। প্রত্যক্ষদর্শী এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার কাটখাল ইউনিয়নের হাজীপাড়ায় এলাকার আবদুস সালামের ঘরের রান্নার গ্যাস সিলিন্ডারের পাইপে ছিদ্র ছিল। সেই ছিদ্র দিয়ে আগেই গ্যাস পুরো ঘরে ছড়িয়ে ছিল। সালামের স্ত্রী সিপাইনেছা রান্না করতে গিয়ে চুলা জ্বালাতে পারছিলেন না। এ সময় তারা বাইরে থেকে আগুন নিয়ে চুলা জ্বালাতে গেলে পুরো ঘরে আগুন ছড়িয়ে পড়ে। এ আগুনেই তারা দগ্ধ হয়। পরে প্রতিবেশি লোকজন গিয়ে ঘরের আগুন নিভিয়ে দগ্ধদের উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠানোর ব্যবস্থা করেন। পুলিশের কাটখাল তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ এসআই মো. মাসুদ মিয়া জানান, এলাকার লোকজন তাদের উদ্ধার করে বাজিতপুরের জহুরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়েছে। বাজিতপুরের জহুরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের জরুরি বিভাগের দায়িত্বরত চিকিৎসক ডা. আবু বকর সিদ্দিক জানান, পুড়ে যাওয়া দুই শিশুসহ আটজনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে রেফার করা হয়েছে। কারণ তাদের শরীরের বেশিরভাগ অংশ পুড়ে গেছে।

সম্পর্কিত খবর
সব খবর
© ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | বাংলা৫২নিউজ.কম
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি এবং অপরাধ