কিছুদিন আগেই জগৎখ্যাত পপ গায়িকা শাকিরা আর স্প্যানিশ ফুটবল তারকা জেরার্ড পিকে দম্পতি ছিলেন লাখো কোটি মানুষের প্রিয় এক যুগল। কিন্তু পিকে পরকীয়ায় জড়িয়ে যাবার পর এই গেল শনিবারই আনুষ্ঠানিক বিচ্ছেদের ঘোষণা দেয় এই দম্পতি। সেই থেকে সংবাদমাধ্যম থেকে শুরু সামাজিক মাধ্যম, সবখানেই আলোচনার বিষয় শাকিরা আর পিকের বিচ্ছেদ। সবাই অপেক্ষায় আছেন, তাদের মুখথেকে কিছু শোনার জন্য। কিন্তু এ নিয়ে কারও কোন কথা নেই। তবে বিচ্ছেদের পর প্রথম পোস্ট দিয়েছেন শাকিরা।

নিজেদের টুইটার হ্যান্ডেলে শাকিরা পোস্ট দিলেও, সেটি তাদের বিচ্ছেদ নিয়ে নয়। টুইটারে দেয়া পোস্টে দেখা যাচ্ছে শাকিরা তার বাবার গালে চুমু খাচ্ছেন। আর বাবার কপালে ব্যান্ডেজ। গত ২৮ মে বার্সেলোনাতে শাকিরার বাবা হঠাৎ পড়ে গিয়ে মাথা ফাটিয়ে ছিলেন। সেই ঘটনার বিস্তারিত জানালেন শাকিরা নিজেই। টুইটারে তিনি সেই কথাই লিখেছেন।

জেরার্ড পিকের সঙ্গে বিবাহ বিচ্ছেদ হওয়ার পর সামাজিক মাধ্যমে দেয়া প্রথম বার্তায় শাকিরা বলেন, গত সপ্তাহে আমাকে একটি অ্যাম্বুলেন্সে দেখতে পাবার পর থেকে আমি ভক্তদের কাছ থেকে অসংখ্য বার্তা পাচ্ছি। তাদের উদ্বেগ আমাকে ছুঁয়ে গেছে। তিনি জানান, যে ছবি দেখে সবার এতো উদ্বেগ, সেটি ছিলো গত সপ্তাহের। সেদিন তার বাবা হঠাৎ করে পরে যান। তিনিই অ্যাম্বুলেন্সে করে বাবাকে হাসপাতালে নিয়ে যান।

শাকিরা বলেন, সেখানে তার বাবা এখন সুস্থতার পথে। দয়াকরে সব শুভ কামনা তার জন্য পাঠাতে বলেছেন তিনি। সবার ভালোবাসা ও সমর্থনের জন্য ধন্যবাদও দেন তিনি।

শনিবার সকালে সাকিরা ও পিকে তাদের বিচ্ছেদের ঘোষণাটি দেন। এই জুটির দুই ছেলে সন্তান রয়েছে। বছরের পর বছর তারা বার্সেলোনার উপকণ্ঠে বসবাস করে আসছেন। এক বিবৃতিতে ওই জুটি জানায়, আমরা অত্যন্ত দুঃখের সাথে জানাচ্ছি যে এখন থেকে আমরা আলাদা হয়ে যাচ্ছি । সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার পাওয়া আমাদের সন্তানদের স্বার্থেই এই সিদ্ধান্ত।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

x