মনিরুল ইসলাম:- রাগ করে বাড়ি ছেড়ে চলে যাওয়া ভাইকে খুঁজতে গিয়ে লাশ হয়ে বাড়ি ফিরলো নিলুফা ইয়াসমীন (৩৫) নামের এক গৃহবধু । এ দূর্ঘটনায় তার পুত্র আলগামন চালক হাসান (১৬) আহত হয়েছে ।
আজ শুক্রবার (১৩ মে) সকালের দিকে মেহেরপুর-মুজিবনগর প্রধান সড়কের গৌরীনগর কবরস্থানের নিকট এই দুর্ঘটনাটি ঘটে।
নিহত নিলফা মুজিবনগর উপজেলার বাগোয়ান ইউনিয়নের নাজিরাকোনা গ্রামের আনোয়ারুল ইসলামের মেয়ে এবং মেহেরপুর সদর উপজেলা পিরোজপুর গ্রামের উসমান হোসেনের স্ত্রী।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে নিহত নিলুফার ইয়াসমীনের ভাই আলামিন হোসেন পারিবারিক কলহের জের ধরে রাগ করে বাড়ি থেকে চলে যায়। তার ভাই কে খুঁজতে শুক্রবার ভোরে নিলুফা ও তার ছেলে হাসান নিজেদের স্যালো ইঞ্জিন চালিত নসিমনে মেহেরপুরে দিকে যাচ্ছিল। নসিমন চালাচ্ছিল তার ছেলে হাসান ।
মেহেরপুর-মুজিবনগর সড়কের করে গৌরীনগর কবরস্থানের নিকট পৌছানো মাত্রই নছিমনটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার উপর উল্টে যায়। এতে মা ও ছেলে মারাত্বক আহত হয়। স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে মুজিবনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। সেখানে নিলুফার অবস্থা আশকাজনক হওয়ায় কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মেহেরপুর সদর হাসপাতালে রেফার্ড করেন । দুপুরের দিকে মেহেরপুর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায় নিলুফা ।

দুর্ঘটনার বিষয়ে মুজিবনগর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মেহেদি রাসেল জানান, দুর্ঘটনার খবর পেয়ে সেখানে পুলিশ পাঠানো হয় এবং লাশ পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়। তারা নিজেরাই দুর্ঘটনায় পতিত হয়েছে এবং পরিবারে কোনো অভিযোগ না থাকায় লাশ পরিবারের হেফাজতে দেওয়া হয়েছে।
শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত মৃত্যের লাশ তার পিতার বাড়ি নাজিরাকোনা গ্রামের কবরস্থানে বাদ জুম্মা দাফন করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

x