02 December, 2020
শিরোনাম

কপালে তার ‘খাড়া দুটো শিং’ (ভিডিও)

 26 Oct, 2020   60 বার দেখা হয়েছে

 নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রিন্ট

সর্বাধিকবার দেহ পরিবর্তন করে গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে নাম তুলেছেন এক জার্মান নাগরিক। রল্ফ বুখহলজ নামে ওই ব্যক্তি এখনও পর্যন্ত ৫১৬ বার তার দেহে নানারকম পরিবর্তন করিয়েছেন। পরিবর্তনের ধারাবাহিকতায় শিং-ও রয়েছে তার মাথায়!

গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ড থেকে পাওয়া তথ্য অনুযায়ী, জার্মানির বাসিন্দা ওই ব্যক্তি একটি টেলিকম সংস্থায় কর্মরত। ৪০ বছর বয়সে প্রথম ট্যাটু করিয়েছিলেন রল্ফ। সেই সময়ই প্রথম পিয়ার্সিং করান তিনি। এরপর পেরিয়েছে ২০ বছর। সময়ের সঙ্গে সঙ্গে নাক, ঠোঁট, ভ্রু, কপাল সমস্ত জায়গাতেই একাধিক পিয়ার্সিং করিয়েছেন। দেহে তৈরি করেছেন অজস্র ট্যাটু। তৈরি করেছেন দুইটি ছোট শিং। জানা গিয়েছে, সর্বাধিকবার দেহে ছিদ্র অর্থাৎ পিয়ার্সিং করানোর জন্য ২০১০ সালে গিনেসের তালিকায় নাম ওঠে রল্ফের। পরে ২০১৪ সালে বিমানবন্দর থেকে হোটেলে যাওয়ার পথে সাধারণ মানুষের নজরে পড়ে যান তিনি।
 
দেহে এত কারুকার্য, এত পরিবর্তনের পর কেমন লাগে? রল্ফের কথায়, তার অন্তরের এতটুকুও পরিবর্তন হয়নি। তিনি ৪০ বছর আগে যেমন ছিলেন, এখনও ঠিক তেমনটাই আছেন।দেখুন ভিডিও-

https://youtu.be/qxs6mlL-1Ho

সময় টিভি



সম্পর্কিত খবর
সব খবর
© ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | বাংলা৫২নিউজ.কম
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি এবং অপরাধ