ডাক বিভাগের মোবাইল ফাইন্যান্সিয়াল সার্ভিস ‘নগদ’এর আয়োজনে ‘সন্তানের কণ্ঠে কোরআন তিলাওয়াত’ গ্র্যান্ড ফিনালে সম্প্রতি অনুষ্ঠিত হয়েছে।

এই প্রতিযোগিতায় তিন বিভাগে বিজয়ী হয়েছেন কুমিল্লার সাকিবুল ইসলাম, বরিশালের মোহাম্মদ ফাহিমুর রহমান এবং ময়মনসিংহের মোহাম্মদ লাবিব আল হাসান।

মাত্র সাড়ে তিন বছর আগে যাত্রা শুরু করা ‘নগদ’ এখন সাড়ে ছয় কোটি গ্রাহকের বিশাল এক পরিবার। এই পরিবারের বড় অংশ হলেন ২ লাখ উদ্যোক্তা। এই দুই লাখ উদ্যোক্তার সন্তানদের জন্য ‘নগদ ইসলামিক’ আয়োজন করে ‘সন্তানের কণ্ঠে কোরআন তিলাওয়াত’ শীর্ষক প্রতিযোগিতা।

পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন নগদ এর নির্বাহী পরিচালক এবং ‘নগদ ইসলামিক’ শরিয়া সুপারভিসারি কমিটির সদস্য মোহাম্মদ আমিনুল হক, প্রধান বিপণন কর্মকর্তা শেখ আমিনুর রহমান, এবং প্রধান বিক্রয় কর্মকর্তা মো. শিহাব উদ্দিন চৌধুরী।

প্রতিযোগিতার প্রথম ধাপে ১০টি অঞ্চলের প্রতিযোগীরা অংশ নেন। প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয় তিনটি বয়সভিত্তিক গ্রুপে। গ্রুপগুলো ছিল- ৩ থেকে ৬ বছর বয়সভিত্তিক, ৭ থেকে ১১ বছর বয়সভিত্তিক এবং ১২ থেকে ১৬ বছর বয়সভিত্তিক। এখানে ৬ হাজারেরও বেশি শিশু নিজেদের কণ্ঠে কোরআন তিলাওয়াত রেকর্ড করে পাঠান। অনলাইনে এই ভিডিওগুলো পাঠানো হয়। এর প্রতিটি ভিডিও দেখে যাচাইবাছাই করেছেন ‘নগদ ইসলামিক’-এর শরিয়া সুপারভাইজারি কমিটির সদস্যরা। তারা এই ৬ হাজার প্রতিযোগী থেকে বেছে নেন ৩০ জন সেরা প্রতিযোগীকে । প্রতিটি বয়সভিত্তিক গ্রুপ থেকে বেছে নেওয়া হয় ১০ জন করে শীর্ষ তিলাওয়াতকারী।

বিচারকদের দায়িত্বে ছিলেন শরিয়া সুপারভিজরি কমিটির চেয়ারম্যান অধ্যাপক অধ্যাপক ড. এইচ এম শহীদুল ইসলাম বারাকাতি এবং শরিয়া সুপারভিজরি কমিটির সদস্য মাওলানা মুফতি মাহমুদুল হাসান মাদানী।

এই ৩০ জন তিলাওয়াতকারীকে নিয়ে ঢাকায় অনুষ্ঠিত হয় গ্র্যান্ড ফিনালে। প্রতিযোগিতার নিয়ম অনুসারে এখান থেকে বেছে নেওয়া হয় প্রতি বিভাগের তিনজন করে বিজয়ীকে। এই ৯ বিজয়ীর হাতে তুলে দেওয়া হয় পুরস্কার।

এই প্রতিযোগিতায় ৩ থেকে ৬ বছর বয়সভিত্তিক গ্রুপে বিজয়ী হন কুমিল্লার সাকিবুল ইসলাম (প্রথম), ময়মনসিংহের সুহাইবা ইসলাম রুশদা (দ্বিতীয়) এবং ঢাকা দক্ষিণের মোসাম্মাৎ আমিনা রহমান মামনুন। ৭ থেকে ১১ বছর বয়সভিত্তিক গ্রুপে পুরস্কার জিতেছেন বরিশালের মোহাম্মদ ফাহিমুর রহমান (প্রথম), ময়মনসিংহের মোহাম্মদ আবদুর রহমান ইয়াসিন (দ্বিতীয়) এবং বগুড়ার ফারিয়া আক্তার (তৃতীয়)। ১২ থেকে ১৬ বছর বয়সভিত্তিক গ্রুপে পুরস্কার জেতেন ময়মনসিংহের মোহাম্মদ লাবিব আল হাসান (প্রথম), বরিশালের নুহা ইসলাম মারিয়া (দ্বিতীয়) এবং ঢাকা উত্তরের মোহাম্মদ রায়হান হোসেন (তৃতীয়)।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

x