আনোয়ারুল ইসলাম,রানীশংকৈল (ঠাকুরগাঁও) প্রতিনিধি।। ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈল উপজেলার এক স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণের মামলায় অভিযুক্ত কম্পিউটার  শিক্ষক তৌহিদুল ইসলামকে আটক করা হয়েছে। সোমবার (১৪ মার্চ) দুপুরে রাণীশংকৈল চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট এস রমেশ কুমার ডগার আদালতে তৌহিদুল ইসলাম হাজির হয়ে জামিন আবেদন করেন। আদালত তার আবেদন নামঞ্জুর করে তৌহিদুলকে আটক করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।
তৌহিদুল ইসলাম (২৩) রাণীশংকৈল উপজেলার সহোদর গ্রামের নুর ইসলামের ছেলে এবং রাণীশংকৈল পাইলট হাইস্কুলের কম্পিউটার শিক্ষক।  গত ৫ মার্চ তৌহিদুল ইসলামকে আসামি করে ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীর বাবা বাদী হয়ে রাণীশংকৈল থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন। ওইদিন তৌহিদুলের  বিচারের দাবিতে স্কুলের ছাত্র-ছাত্রীরা পৌরশহরে মানববন্ধন করেন। সেই সঙ্গে তারা অভিযুক্ত শিক্ষকের বিচারের দাবিতে ইউএনও এবং স্কুল কর্তৃপক্ষের কাছে স্মারকলিপি দেন।
এরপর আরো কয়েকদফায় আন্দোলন করে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা। সর্বশেষ ১৩ মার্চ তৌহিদুলের গ্রেপ্তারের দাবিতে পৌরশহরে রাস্তা অবরোধ করে শিক্ষার্থীরা। এতে প্রশাসনকে ২৪ ঘন্টার আল্টিমেটাম দেয়া হয় । ১৪ মার্চ জেলা আদালতে জামিন নিতে গেলে আটক হয় অভিযুক্ত তৌহিদুল ইসলাম ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x