ইউরোপ ব্যুরো:

দক্ষ কর্মীর ভয়াবহ সংকট দেখে দিয়েছে জার্মানিতে। দক্ষ কর্মীর সংকট কাটাতে শিগগির ‘গ্রিন কার্ড’ চালুর পরিকল্পনা করছে দেশটি। ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত নয় এমন দেশের মানুষরা এই কার্ডের সুযোগ নিয়ে জার্মানিতে আসতে পারবেন৷

নতুন এক গবেষণা বলছে, জার্মানির শ্রমবাজার ২০৩৫ সাল নাগাদ ৭০ লাখ কর্মী হারাবে।

জার্মানির ন্যুরেমবার্গকেন্দ্রিক ইন্সটিটিউট ফর এমপ্লয়মেন্ট রিসার্চ (আইএবি) এই তথ্য জানিয়ে পরিস্থিতি থেকে উত্তরণে জরুরি পদক্ষেপ নেয়ার পরামর্শ দিয়েছে।

গতকাল সোমবার প্রকাশিত গবেষণার ফলাফলে বলা হয়েছে, বয়স্ক এবং নারীদের আরো শ্রম বাজারে সংযুক্ত করার পাশাপাশি সুনির্দিষ্ট লক্ষ্য নিয়ে অভিবাসন নিশ্চিত করা গেলে এই সংকট কাটানো বা কমানো সম্ভব হতে পারে৷

আইএবির চার গবেষকের একজন এনজো ভেবার এই বিষয়ে বলেন, ‘‘জনসংখ্যাগত পরিবর্তনের কারণে ২০৩৫ সাল নাগাদ ৭০ লাখ কর্মী হারাবে জার্মানি, যা মোট শ্রমবাজারের এক সপ্তমাংশ৷ তবে এই পরিস্থিতি পরিবর্তন করাও সম্ভব৷’’

মূলত ‘বেবি বুমার’ প্রজন্ম অবসরে যেতে শুরু করায় এই পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে বলে মনে করেন জার্মান বিশেষজ্ঞরা৷ দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ পরবর্তী ১৯৪৬ এবং ১৯৬৪ সাল অবধি সময়কালে জার্মানিতে জন্ম নেয়া প্রজন্মকে বেবি বুমার প্রজন্ম বলা হয়৷ সেসময় বিপুল সংখ্যক শিশুর জন্ম হয়েছিল৷

প্রসঙ্গত, কর্মী সংকট কাটাতে সম্প্রতি ‘গ্রিন কার্ড’ চালুর উদ্যোগ নিয়েছে জার্মানি। দেশটির সংসদে চূড়ান্ত অনুমোদন পেলে এই কার্ড ব্যবহার করে আগের চেয়ে সহজে জার্মানিতে কাজ খুঁজতে আসা যাবে৷ বর্তমানে জার্মান শ্রমমন্ত্রণালয় এসংক্রান্ত আইনটির খসড়া প্রস্তুত করছে৷ শিগগির সেটি অনুমোদনের জন্য সংসদে তোলা হবে৷ সংসদে পাস হলে গ্রিন কার্ড ইস্যু শুরু হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x