বঙ্গবন্ধু সাফারি পার্কের জেব্রার মৃত্যুর কারণ খুঁজতে মাঠে নামলো সিআইডি। এরই মধ্যে সাফারি পার্ক থেকে ১০ ধরনের আলামত সংগ্রহ করা হয়েছে। যা পরীক্ষা করা হচ্ছে সিআইডির তিনটি ল্যাবে। নেয়া হচ্ছে বন্যপ্রাণী গবেষকদেরও পরামর্শ।

সাত দিনের মধ্যে ফল জানা যাবে বলে জানায় সিআইডি।

বঙ্গবন্ধু সাফারি পার্কে এক মাসে ১১টি জেব্রা মারা গেছে। মৃত্যুর কারণ জানতে ৭ ফেব্রুয়ারি সাফারি পার্ক পরিদর্শন করেন ঢাকা রেঞ্জের সিআইডির একটি টিম।

জেব্রার বিচরণের মাটি, খাওয়ার ঘাস, জলাশয়ের পানিসহ ১০টি নমুনা সংগ্রহ করেছে তারা। সিআইডির ফরেনসিক বায়োল্যাবে এগুলো পরীক্ষা করা হচ্ছে। একই সাথে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ও আইসিডিডিআরবির ল্যাবেও টেস্ট করা হচ্ছে।

জেব্রাগুলোর মৃত্যুর পেছনে কোনো ব্যক্তির গাফিলতি রয়েছে কিনা তাও খতিয়ে দেখছে সিআইডি। নেয়া হচ্ছে ১০ প্রাণী গবেষকের পরামর্শ। সিআইডি যেহেতু মানুষের নমুনা পরীক্ষা করে আসছে তারা প্রাণীরও ময়নাতদন্ত করতে পারবে বলে আশা প্রাণী গবেষকদের।

এর আগে, ১১ জেব্রার নমুনা পরীক্ষা করা হয় বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে। তাতে জানা যায়, মৃত ৮টি জেব্রাই নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত ছিল। যে কারণে প্রাণীগুলোর ইকোয়ান করোনা ভাইরাস সংক্রমণের সন্দেহ করেন গবেষকরা।

গত ২ জানুয়ারি থেকে ৩ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত পার্কে ১১টি জেব্রা, ১টি বাঘ ও ১টি সিংহ মারা গেছে।

এসব প্রাণীর মৃত্যুর ঘটনায় একটি বিশেষজ্ঞ মেডিকেল বোর্ড, সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয় ১০ কার্যদিবস সময় মেয়াদে গত ২৬ জানুয়ারি একটি তদন্ত কমিটি ও প্রাণী সম্পদ মন্ত্রণালয় পৃথক আরেকটি কমিটি গঠন করে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x